Nafeez Moontasir Robin

0
956
Nafeez Moontasir Robin‎

১ বছর হয়ে গেলো!! নিজের মনে মনে ভাবতে গেলে মাঝে মাঝেই গা কাটা দিয়ে উঠে! কোন অনুষ্ঠান বা ভিড়ের মাঝে আমাকে আর আড়াল করে থাকতে হবে না! গ্রামের বাড়িতে গিয়ে রাস্তায় বেড়োলে পিচ্চিরা ভিড় করে দাড়িয়ে দেখে হাসবে না!! কিংবা কোন মুরুব্বী সেধে এসে ওজন কমানো নিয়ে জ্ঞানের আলাপ পারতে আসবে না!! যেকোন কাপড়ের শুরূমে গিয়েই হাসির পাত্র না হয়ে আমার সাইজের শার্ট কিংবা প্যান্ট কিনতে পারবো!! নতুন লাইফ স্টাইল আমার!

আজকে ২৯ এপ্রিল!! গতবছর ঠিক এইদিনে খুব ঠান্ডা মাথায় চিন্তা ভাবনা করে সিদ্ধান্ত নিলাম এবার ওজন কমাবোই। এই হাসির পাত্র হয়ে থাকার জীবন আর ভালো লাগছে না। খাওয়া-দাওয়া বাদ দিয়ে টানা কয়েকমাস কষ্ট করতে হবে! আমার জন্য এটা ছিলো অসম্ভব! গতবছর ২৯ এপ্রিল থেকে নিজেকে রেডি করা শুরু করে দিলাম। এবার এসপার কি ওসপার! উপরের তিনটা ছবিই গতবছর তোলা। ওজন আমার তখন ১১১ কেজি!! ডায়েট কাউন্সেলিং সেন্টার থেকে একটা চার্ট যোগাড় করলাম। তবে সাথে সাথে কিন্তু শুরু করি নাই। মানসিক ভাবে প্রস্তুত হচ্ছিলাম। নিজের মনকে বুঝাচ্ছিলাম। নিজেকে তৈরী করছিলাম টানা কয়েকমাসের কষ্টের এক যাত্রার জন্য।

১০ মে, ২০১৫ থেকে আমার মিশন শুরু হলো। ডায়েট চার্ট খুব কড়াভাবে মানতেছিলাম। এতই কড়াভাবে যে একটা সময় যারা আমার উল্টাপাল্টা খাওয়ার জন্য ধমক দিতো তারাই মাঝে মাঝে একটু ভালো খাওয়ানোর জন্য উঠে পড়ে লাগলো। কিন্তু আমি নিজের লক্ষে টাইট ছিলাম এবার। বাসার আম্মু, ছোটবোন, ছোটভাই এবং বাইরের কিছু বন্ধুদের খুব শক্ত সাপোর্ট পাচ্ছিলাম। এই গ্রুপের সন্ধান জানতাম না। কিন্তু ফেসবুকেও আমার কখনো দেখা না হওয়া কিছু চমৎকার বন্ধু/ছোটভাই/বড়ভাই ছিলো। ফেসবুকে রেগুলার পোষ্ট দিতাম নিজের আপডেট নিয়ে। উনার দারুণ সাপোর্ট করতেন। ইনবক্সে খোজখবরও নিতেন। মানসিকভাবে বেশ লাগছিলো। ডায়েট + হাটা + ডেইলি ৩ ঘন্টা এক্সারসাইজ বাইক + সাইড বেন্ড + হাটা। এই রুটিনেই টানা চলতেছিলাম।

১ ডিসেম্বর, ২০১৫। প্রায় ৭ মাস পার হয়ে গেলো এভাবেই। ওজন এসে দাড়ালো ৭০ কেজিতে ! ৪১ কেজি কমিয়ে ফেলেছি। এতটা পারবো সেটা কল্পনাতেও ছিলো না! ডায়েট চার্ট মানা অফ করে দিলাম। নরমাল খাবারে ফিরে গেলাম। তবে হাটা আর সাইকেলটা অফ করি নাই। শুরুতে নরমাল খাবারে প্রচন্ড ভয় পেতাম। কিছু খেলেই মনে হতো এইতো ওজন বেড়ে যাবে ! মেটাবলিজম রেটও গেলো বেড়ে। আর সাথে ব্যাপক হাটার কারণে ১৫ মার্চ, ২০১৬ তে এসে ওজন দাড়ালো ৬৫ কেজিতে!! ১১১ কেজি থেকে ৬৫ কেজি! ৪৬ কেজি কমিয়ে ফেলেছি! একটা মানুষের সমান ওজন বলা যায়!

আজকের তারিখ ২৯ এপ্রিল, ২০১৬। নীচের ৩টা ছবি কাছাকাছি সময়ের তোলা। ৬৫ কেজির মাঝেই ঘুরপাক খাচ্ছি। আর কমাবো না কিন্তু কোনভাবেই বাড়তে দিবো না। আরামে খাওয়া-দাওয়া করছি। বেছে বেছে নয় কিন্তু। পছন্দের সবই খাচ্ছি। কিন্তু খুব বুঝেশুনে। খাওয়া নিয়ে কিভাবে কি করতে হবে সেটা খুব ভালোভাবে বুঝে গেছি। নিজের উপর সম্পূর্ণ বিশ্বাস চলে এসেছে। ওজন আর আমার বাড়বে না কিংবা বাড়তে দিবো না। ৬৫ কেজির মাঝেই থাকবো।

এটাই ছিলো আমার গল্প। আমার ৪৬ কেজি কমানোর গল্প। আমি এখন নতুন এক লাইফ স্টাইলে। জীবন নিয়ে প্রচন্ড হ্যাপি। কনফিডেন্স লেভেল প্রচন্ড বেড়ে গেছে। দারুণ আছি আমি।

গ্রুপে আগেও আমার নানা গল্প শেয়ার করেছি। ১ বছর পূর্তি উপলক্ষে পুরনো জিনিসই নতুন মোড়কে আবার দিলাম।

Like
Like Love Haha Wow Sad Angry

পাঠকের মতামতঃ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here