A journey to weight loss with PCOS – Part-2

0
3216

গত কালের পোষ্টের পর ইনবক্স এ অনেক অনেক এবং অনেক আপু নক দিচ্ছেন তাদের নানা রকম সমস্যা আর জানা অজানা র সমাধান পেতে।
আমি যদি সবাই কে বসে বসে রিপ্লাই দিতে যাই, আজকে রাত পার হয়ে যাবে। তবুও অনেকের প্রশ্নের উত্তর দেয়ার চেষ্টা করেছি আমার সীমিত জ্ঞানে।
এ থেকেই আসলে বুঝা যায়,,, আমাদের বোনেরা এই বিষয় টি কে কত টা গুরুত্বের সাথে নিচ্ছেন আজকাল,, তাদের সমস্যাগুলো এভাবে আলোচনায় না আনলে আড়ালেই রয়ে যেত।
আলহামদুলিল্লাহ আমরা সবাই পিসিও কে জয় করে একটি সুস্থ শরীর নিয়ে জীবন কে উপভোগ করবো।
** প্রথমেই বলে নেই,,, একজন সাধারন মানুষ এর ডায়েট প্ল্যান আর একজন পিসিও পেশেন্ট ডায়েট প্ল্যান হুবুহ এক নয়।
পিসিও তে ওজন কমানো রিতীমত একটা চ্যালেঞ্জ। কারন এতে হরমোনাল বিষয় গুলো জড়িত।
প্রোটিন, কার্ব, ক্যালসিয়াম, আয়্রন একটি কম বেশি হলেই,, মাথা ঘুরাবে,,, হাইপো হয়ে ব্রেইন স্ট্রোক ও হতে পারে।
তাছাড়া একজন পিসিও পেশেন্ট যখন থাইরয়েড আর টাইপ ২ ডায়াবেটিস এ আক্রান্ত হয়ে যান,,, তখন বিষয় টি জটিল হয় আরো।
##পিসিও পেশেন্ট এর ইস্ট্রোজেন হরমোন এর গন্ডগোল,, প্রস্টেজন হরমোন এর বেশি নি:সরন এর ফলে,,, শরীরে ব্রন, কণ্ঠ ছেলেদের মত ভারী হয়ে যাওয়া,,,, পুরুষালি পশম গজানো,,, চুল পড়া এমন কি ওভারি ক্যান্সার এ আক্রান্ত হতে পারেন।

কি কি করনীয়::
আমরা চেষ্টা করব,,,, মেডিসিন এর উপরে শরীর আগেই অভ্যস্ত না করে প্রাকৃতিক উপায়ে প্রতিরোধ করতে।
অবশ্য ডাঃ যদি মেডিসিন দেন তাহলে অবশ্যই খেতে হবে।
বেশিরভাগ পিসিও পেশেন্ট কে মেটফরমিন হাহাইড্রোক্লোরাইডখেতে দেয়া হয়।
পিরিয়ড রেগুলার করার জন্য পিল খেতে দেয়া হয়,,,, এগুলো ওজন কমাতেও সহায়ক ভূমিকা পালন করে।
যারা বাচ্চা নিতে চান তাদের দেয়া হয় ওভাকেয়ার ট্যাবলেট। অভ্যুলুশন এর জন্য। এগুলো পিসিও র কমন মেডিসিন।

এটুকু পর্যন্ত আশা করি অনেকে কিছু কিছু প্রশ্নের উত্তর পেয়ে গেছেন।
এবার আসি,,,, আমি যদি পিসিও হই তাহলে কি কি করবো না:::

১) প্রসেসড ফুড বাদ দিবেন জীবন থেকে,,, যেমন : সসেজ, টিন জাত মাছ, মাংস,,। এগুলো পরে ওভারি তে ফ্রাব্রয়েড(টিউমার) বানাবে।

২) সফট ড্রিংক না

৩) অনেকে ডেইরী খান না,,, খাবেন তবে সেটা লো ফ্যাট। টক দই খাবেন, সর ছাড়া দুধ খাবেন।

৪) ফাস্টফুড কে টা টা বলে দিন।

৫) লাল মাংস খাওয়া কমিয়ে দিন, এর বদলে বাচ্চা মুরগী, কবুতর, সবজি, মাছ, রুটি ওটস এ চাপ বাড়ান।
৬) সবচেয়ে বেশি করা প্রশ্ন::
আপু তিসি কিভাবে খান??
সপ্তাহে ২/৩ দিন। ধুয়ে রোদে শুকিয়ে শুক্নো ফ্রাই প্যান এ টেলে ১ চা চামচ করে চিবিয়ে খাবেন।
গুড়া করেও খেতে পারে।

৭) পিসিও তে মুড সুইং হয় প্রচুর,,, রোগী বিষন্নতায় আক্রান্ত হন।
অবসরে সূরা শুনুন, গান শুনুন।
নাচুন,,, বেড়াতে যান একা নিজেকে অন্তত ৩০ মিনিট সময় দিন। চিয়ার আপ থাকুন।

৮) এক্সারসাইজ,, এএক্সারসাইজ এবং এক্সারসাইজ, বিকল্প নাই।
আপনি যখন বাচ্চার জন্য চেষ্টায় যাবেন,,, তখন দেখা যাবে ততদিনে ওভারি তে সিস্ট হয়ে সব ব্লক হইসে, নয় টিউমার দিয়ে ছড়ায় গেসে!!!!
সুতরাং বইনেরা,,,আপনার যদি সময় হয় অবশ্যই ইন্টারনেট এ থিসিস আর ফিচার গুলো পড়ুন।
এশিয়ার ৮৫% মেয়ে পিসিও পেশেন্ট!!! ভাবা যায়??
ওই লেখা গুলো, বড় বড় স্ত্রী রোগ বিশেষজ্ঞ রা অনেক থিসিস করেই লেখসেন!!!
সব শেষে বলবLove yourself ♥♥ happy weight loss journey with pco.

Like
Like Love Haha Wow Sad Angry
6

পাঠকের মতামতঃ

LEAVE A REPLY

Please enter your comment!
Please enter your name here